Bangla News Line Logo
bangla fonts
৩১ ভাদ্র ১৪২৬, রবিবার ১৫ সেপ্টেম্বর ২০১৯, ১১:৫৭ অপরাহ্ণ
facebook twitter google plus rss
সর্বশেষ
প্রশাসন সেই নারীর দায়িত্ব নেয়ার পর চিকিৎসা শুরু পূর্বধলায় আলোর ফেরিওয়ালা বিদুৎসংযোগ:১২৬ বাড়ি আলোকিত নেত্রকোণায় বাউল সাধক রশিদ উদ্দিনের স্মরণ উৎসব নেত্রকোণায় দুর্গাপুজা উদযাপনে সভা গাড়ি উল্টে এসপিসহ আহত ৩, গানম্যান নিহত

সাম্প্রদায়িক শক্তির বিষদাঁত চিরতরে ভেঙে দিয়েছে মানুষ


নিজস্ব প্রতিবেদক, বাংলানিউজলাইন ডটকম:


সাম্প্রদায়িক শক্তির বিষদাঁত চিরতরে ভেঙে দিয়েছে মানুষ

একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনের মধ্য দিয়ে আওয়ামী লীগকে টানা তৃতীয়বারের মতো বিজয়ী করে ভোটাররা এ দেশে ‘সাম্প্রদায়িক, যুদ্ধাপরাধী শক্তির বিষদাঁত চিরতরে ভেঙে দিয়েছে’ বলে প্রথম প্রতিক্রিয়া এসেছে স্বাধীনতার নেতৃত্বদানকারী দলটির পক্ষ থেকে।

ভোটে নিরঙ্কুশ বিজয়ের পর আজ সোমবার দলের প্রথম আনুষ্ঠানিক সংবাদ সম্মেলন থেকে উল্লাস প্রকাশের জন্য কোনো ধরনের মিছিলের আয়োজন না করার জন্য নেতাকর্মীদের নির্দেশও দেওয়া হয়েছে। বলা হয়েছে উপাসনালয়ে প্রার্থনা ও দোয়া-মাহফিলের আয়োজন করার।  

গতকাল রোববার একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনের ভোট গ্রহণপর্ব শেষে প্রতিদ্বন্দ্বী জোট ও দলগুলোকে বহু পেছনে ফেলে বিপুল সংখ্যাগরিষ্ঠতা অর্জন করে বিজয়ী হয়েছে আওয়ামী লীগ নেতৃত্বাধীন মহাজোট।

ফল অনুসারে দেশব্যাপী ৩০০ সংসদীয় আসনের মধ্যে ২৮৭টিতেই মহাজোট জয়ী হয়। বিরোধী পক্ষ জাতীয় ঐক্যফ্রন্ট পায় ছয়টি আসন। এ ছাড়া সিলেট-২ আসনে দলীয় প্রতীক উদীয়মান সূর্য নিয়ে জয়ী হন গণফোরামের সভাপতিমণ্ডলীর সদস্য মুকাব্বির খান। মহাজোটের বাইরে বরিশাল-৩ আসনে জয়ী হন জাতীয় পার্টির উন্মুক্ত প্রার্থী গোলাম কিবরিয়া টিপু। এর বাইরে স্বতন্ত্র প্রার্থী হিসেবে জয়ী হন আরো তিনজন।

ব্রাহ্মণবাড়িয়া-২ (সরাইল-আশুগঞ্জ) আসনে তিনটি কেন্দ্রে ভোট গ্রহণ স্থগিত আছে। সেখানে এগিয়ে আছেন ঐক্যফ্রন্ট প্রার্থী উকিল আবদুস সাত্তার। এ ছাড়া গাইবান্ধা-৩ আসনে এক প্রার্থীর মৃত্যুর কারণে সেখানে আগামী ২৭ জানুয়ারি ভোটের দিন ঠিক করা হয়েছে।

এ প্রেক্ষাপটে দুপুরে ধানমণ্ডিতে আওয়ামী লীগ সভাপতি শেখ হাসিনার রাজনৈতিক কার্যালয়ে দুপুরে সংবাদ সম্মেলনে আসেন দলটির নেতারা। দলকে বিজয়ী করার জন্য দেশের মানুষের প্রতি অভিনন্দন জানান তাঁরা।   

এ সময় দলের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক আবদুর রহমান বলেন, ‘এই নির্বাচনে আজকের বাংলাদেশের মানুষ, সাম্প্রদায়িক শক্তির বিষদাঁত চিরতরে ভেঙে দিল। এবং জামায়াত, যুদ্ধাপরাধীর যে অপশক্তি, তাদের হাত গুঁড়িয়ে দিল এই ভোটের মাধ্যমে। (তাদের) সত্যিকার অর্থেই আজকে আমরা অভিভূত যে, এই বাংলাদেশের জনগণ ন্যায়ের পথে আছে, সত্যের পথে আছে, স্বাধীনতার পক্ষে আছে, অসাম্প্রদায়িক রাজনীতির পক্ষে আছে, শেখ হাসিনার প্রতিনিধিত্বের পক্ষে আছে।’

নেতাকর্মীদের উল্লাস প্রকাশ না করার নির্দেশ দিয়ে আওয়ামী লীগের পক্ষ থেকে বলা হয়, ‘আজকে তাই, এই বিজয়ের দিনে, আমাদের নেত্রী শেখ হাসিনা, তিনি নির্দেশনা দিয়েছেন, যেকোনো ধরনের বিজয় উল্লাস বা কোনো ধরনের বিজয় মিছিল আমরা করব না। আমরা বাংলাদেশের মসজিদে, মন্দিরে, গির্জায়, প্রার্থনা করব, আল্লাহ পাক মহান রাব্বুল আলামিনের দরবারে আমরা শুকরিয়া আদায় করব।’

‘এই দেশের সব মানুষের সব উদ্বেগ-উৎকণ্ঠাকে আজকে ম্লান করে দিয়ে, শান্তিপূর্ণ একটা নির্বাচন শেষ হয়েছে। এবং এই নির্বাচনে আজকে বাংলাদেশের মানুষ, স্বস্তির নিশ্বাস ফেলেছে। সুতরাং, আমরা কোনো ধরনের বিজয় উল্লাস করব না।’

এ সময় নির্বাচনের তথ্য সংগ্রহে আসা বিদেশি বিভিন্ন গণমাধ্যমের কর্মী, নির্বাচনী পর্যবেক্ষককে আওয়ামী লীগের পক্ষ থেকে অভিনন্দন ও শুভেচ্ছা জানান আবদুর রহমান।

বাংলানিউজ লাইন.কম এ প্রকাশিত/প্রচারিত সংবাদ, তথ্য, ছবি, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট বিনা অনুমতিতে ব্যবহার বেআইনি।

আপনার মন্তব্য লিখুন: