Bangla News Line Logo
bangla fonts
১১ মাঘ ১৪২৬, শুক্রবার ২৪ জানুয়ারি ২০২০, ৮:১৮ অপরাহ্ণ
facebook twitter google plus rss
সর্বশেষ
নেত্রকোণায় বেরী বাধ নির্মাণ বন্ধের দাবিতে কৃষকদের মানববন্ধন নেত্রকোণায় একাত্তরের দালালকে ভাষাসৈনিক বানানোর অপচেষ্টার অভিযোগ সিনহাসহ ১১ জনের নামে পত্রিকায় বিজ্ঞপ্তি প্রকাশের নির্দেশ ই-পাসপোর্ট প্রকল্পে বাংলাদেশ আরো একধাপ এগিয়ে যাবে: প্রধানমন্ত্রী কেন্দুয়ায় মাদ্রাসা ছাত্রী ধর্ষণ: প্রতিবাদে মানববন্ধন

জড়িতদের গ্রেপ্তার ও পাল্টা মামলার প্রতিবাদে মানববন্ধন, বিক্ষোভ



জড়িতদের গ্রেপ্তার ও পাল্টা মামলার প্রতিবাদে মানববন্ধন, বিক্ষোভ


নেত্রকোণার কেন্দুয়ার পাইকুড়া ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান ও আওয়ামীলীগ নেতা মো.হুমায়ূন কবির চৌধুরীর ব্যক্তিগত কাযালয় ভাংচুর, ঘটনায় দায়ের করা মামলার আসামিদের গ্রেপ্তার তাঁর বিরুদ্ধে পাল্টা মামলা দায়েরের প্রতিবাদে মানববন্ধন বিক্ষোভ হয়েছে।

বৃহস্পতিবারবেলা ১১টার দিকে বৈরাটিবাজার এলাকায় পাইকুড়া ইউনিয়ন বাসীর ব্যানারে এই কর্মসূচির আয়োজন করা হয়।এতে নোয়াপাড়া, চিটুয়া, বৈরাটি, কাওয়ালিকান্দা, দেওপাড়া, দুল্লীসহ অন্তত ১০টি গ্রামের সহস্রাধিক লোকজন অংশ নেন।

 ঘণ্টাব্যাপী মানববন্ধন চলাকালে বক্তব্য দেন, পাইকুড়া ইউনিয়ন আওয়ামীলীগের সহসভাপতি ও ওই ইউনিয়ন পরিষদের ২ নম্বর ওয়ার্ডের সাবেক সদস্য কেনু মিয়া, স্থানীয় আওয়ামীলীগ নেতা বৈরাটি গ্রামের বাসিন্দা ফজলুর রহমান, দেওপাড়ার তারামিয়া,কাওয়ালিকান্দার আবুল কাশেম, মানিক মিয়া, রুকনউদ্দিন, সোহাগ মিয়া,তরিকুল ইসলাম প্রমুখ।

মানববন্ধন শেষে একটি বিক্ষোভ মিছিল বের করা হয়।

 স্থানীয় বাসিন্দা পুলিশ সূত্রে জানা গেছে, গত বুধবার রাতে কেন্দুয়া পৌর শহরের কোর্ট রোড এলাকায় দুর্বৃত্তরা উপজেলা আওয়ামী লীগের সাবেক যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক ও পাইকুড়া ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান হুমাযূন কবীর চৌধুরীর ব্যাক্তিগত কার্যালয় ভাংচুর করে।ঘটনার পরদিন হুমায়ূন কবীর বাদী হয়ে দ্রুতবিচার আইনে থানায় মামলা করেন। এতে উপজেলা যুবলীগের আহ্বায়ক মুস্তাফিজউর রহমান, যুগ্ম আহ্বায়ক জাহাঙ্গীর আলম ভূঁঞা, পৌর আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক মাজহারুল ইসলাম, যুবলীগ নেতা তাপস পোদ্দার, ছাত্রলীগ নেতা ইফতিকার,আফরিদ জাহান স্বপনের নাম উল্লেখসহ অজ্ঞাত আরো ২০ থেকে ২৫ জনকে আসামি করা হয়। মামলারএজাহারে উল্লেখ করা হয় ,দুর্বৃত্তরা হামলা চালিয়ে ঘরের দরজা ভেঙ্গে বিভিন্ন মূল্যবান আসবাবপত্র ভাংচুর

এবং টেবিলের ড্রয়ার ভেঙ্গে নগদ লাখ টাকা লুট করে নিয়ে যায়।অপরদিকে ঘটনার পর আসামি পক্ষের লোকজন হুমায়ুন কবীরকে প্রধান আসামি করে পাল্টা মামলা করেন। গত রোববার কাওয়ালীকান্দা গ্রামের সুরুজ আলীর ছেলে খোকন মিয়া বাদী হয়ে দ্রুতবিচার আইনে এই মামলাটি দায়ের করেন। অপর আসামি করা হয় যুবলীগ নেতা মোস্তাক আহমেদ, জামালউদ্দিন, সাদেক আহমেদ, রাইতন মিয়া, আবুল কাশেম, সেলিম মিয়া, সৈয়ন উদ্দিন ও আলআমিন।এই মামলা এজাহারে খোকন মিয়া উল্লেখ করেন, গত জানুয়ারি সকালে খোকনের ছোটভাই পাথাইকোনা সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের শিক্ষক ফজলুল হক বাড়ি থেকে মোটরসাইকেলে করে বই বিতরণ উৎসবের বাঁধা দেন।পূর্বশত্রুতার জের ধরে কাওয়ালিকান্দা বাজারে যাওয়া মাত্রই মামলার এজারে নামউল্লেখ করা আসামিরা তার পথরোধ করেন। পরে দেশীয় অস্ত্র দিয়ে ফজলুল হকের মোটরসাইকেল ভাংচুর, মুঠোফোন মানিব্যাগে থাকা নগদ হাজার টাকা ছিনিয়ে নিয়ে যায়। এছাড়া হামলাকারীরা ওই শিক্ষককে বেধড়ক মারপিট করে।

ব্যাপারে কেন্দুয়া থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মোহাম্মদ রাশেদুজ্জামান বলেন, ‘উভয়পক্ষ থানায় দ্রুতবিচার আইনে পাল্টাপাল্টি মামলা করেছে। মামলায় উল্লেখিত আসামিদের গ্রেপ্তারে চেষ্টা চলছে।

 

বাংলানিউজ লাইন.কম এ প্রকাশিত/প্রচারিত সংবাদ, তথ্য, ছবি, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট বিনা অনুমতিতে ব্যবহার বেআইনি।

আপনার মন্তব্য লিখুন:

জাতীয় -এর সর্বশেষ